Summer Vacation

Summer Vacation – চালু হতে চলেছে শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের সমস্ত কাজকর্ম

গত দু’বছর রাজ্যে সমস্ত শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধ থাকার পর কয়েক দিন আগে খুলেছে (Summer Vacation) স্কুল কলেজ। উচ্চমাধ্যমিক পরীক্ষার আগে কয়েকদিন ক্লাস হলেও পরীক্ষা চলাকালীন রাজ্যে তীব্র তাপপ্রবাহের কারনে কোথাও ৪০ ডিগ্রি সেলসিয়াস হয়েছিল তাপমাত্রা। আবার কোথাও ৪০ দিগ্রি ছুঁইছুঁই। ফলে আর উপায় না পেয়ে আবার ছুটি ঘোষণা করা হয় রাজ্য সরকারের তরফ থেকে।

তবে অনেকেই এই ছুটির পক্ষে ছিলেন না। অনেক শিক্ষকই স্বীকার করে নিয়েছেন স্কুলে বা কলেজে (Summer Vacation) শিক্ষার্থীরা এই দু’বছরের ছুটিতে বেশ অনেক কিছুই ভুলে গেছে। তাদের মানসিকতারও অনেক পরিবর্তন ঘটেছে। অতিমারির পর মাত্র দেড় মাস ক্লাস হলেও আশা করা যাচ্ছিল আবার আগের মতো ছাত্র-ছাত্রীদের পরাশনায় মন ফেরানো যাবে। তবে নতুন করে এই দীর্ঘ গরমের ছুটি পড়ে যাওয়ায় আবার পড়াশোনার ব্যাপক ক্ষতি হবে বলে মনে করছেন শিক্ষক থেকে অবিভাবকেরা।

ভারতে গরম থাকে মোটামুটি কম-বেশি ৫ মাস। তার মধ্যে ২ মাস বেশ গরম থাকে। যার জেরে গত কয়েক বছর ধরে টানা প্রায় দেড় মাসের জন্য রাজ্যের সমস্ত সরকারি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলিতে ছুটি (Summer Vacation) ঘোষণা করা হয়ে থাকে। তবে এবারে যেহেতু আগের মতো অবস্থা আর নেই, তাই শিক্ষক থেকে শুরু করে অভিভাবক সকলেই এই দীর্ঘ ছুটি নিয়ে বেশ চিন্তিত। আর তাই রাজ্য শিক্ষা দপ্তরের ছুটি দেওয়ার সিদ্ধান্তের পুনর্বিবেচনার আবেদন জানিয়ে হাইকোর্টে মামলা দায়ের হয়।

গত ৮ মে মামলাটি গৃহীত হয়। ১৯শে মে মামলাটির পরবর্তী শুনানীর দিন ধার্য করা হয়েছে। আর তার আগেই গরমের ছুটি (Summer Vacation) নিয়ে নয়া সিদ্ধান্ত রাজ্যের। সংবাদ মাধ্যম সূত্রে খবর, রাজ্য উচ্চ শিক্ষা দপ্তর থেকে জানানো হয়েছে আগামী ১৫ই মে এর পর অর্থাৎ ১৭ মে থেকে খুলতে পারে পশ্চিমবঙ্গ রাজ্য বিশ্ববিদ্যালয় (West Bengal State University) বা বারাসাত বিশ্ববিদ্যালয়। অন্যদিকে কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয়ের তরফেও এমনটাই ইঙ্গিত মিলছে। অর্থাৎ আগামী ১৭ মে থেকে খুলতে পারে কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয়ও।

আরও পড়ুন, ষ্টেট ব্যাংক গ্রাহকদের জন্য সুখবর, ফের সুদের হার বৃদ্ধি, দেখুন নতুন সুদের হার এর তালিকা

অন্যদিকে, যে সমস্ত স্কুল শিক্ষকেরা বদলির আবেদন জানিয়েছিলেন, এবং যাদের আবেদন মঞ্জুর হয়েছে তাদেরকে আগামী ৫ দিনের মধ্যে নতুন বিদ্যালয়ে যোগদানের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। সুতরাং ওই সময়ে স্কুল খোলা রাখার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে বিভিন্ন ডিআই অফিস থেকে। সুতরাং ক্লাস না হলেও স্কুলের অফিসিয়াল কাজকর্ম চালু (Summer Vacation) রাখতে হবে। তাই কার্যত শিক্ষকদেরও স্কুলে হাজির থাকতে হবে।

প্রসঙ্গত, গরমের ছুটি কমিয়ে দেওয়া নিয়ে এই বিতর্ক শুরু হলেও নিয়মিত কবে থেকে অফলাইন ক্লাস শুরু হবে তা এখনো নিশ্চিতভাবে জানানো হয়নি। অন্যদিকে স্কুল শিক্ষা দপ্তর সূত্রে জানা গেছে, স্কুল খোলার (Summer Vacation) বিষয়েও শুরু হয়েছে চিন্তা ভাবনা। তবে মনে করা হচ্ছে, আগামী ১৯ মে মামলার শুনানির পর আদালতের সিদ্ধান্তের ওপর ভিত্তি করে নেওয়া হবে পরবর্তী পদক্ষেপ। তবে এটাও ঠিক যে আগামী ১৯ মে এর পর থেকে আদালতে শুরু হয়ে যাবে গরমের ছুটি।

আরও পড়ুন, LIC IPO গ্রাহকদের মাথায় হাত, নজিরবিহীন অভিযোগের জল গড়ালো সুপ্রিম কোর্টে

সুতরাং বলাই বাহুল্য, যদি ১৯ তারিখের মধ্যে এই মামলার নিষ্পত্তি সম্পূর্ণ না হয় তবে যতদিন না পর্যন্ত শিক্ষা দফতরের থেকে পরবর্তী সিদ্ধান্ত গ্রহন না করা হবে স্কুল বন্ধই (Summer Vacation) থাকবে। তবে আশা রাখা যায় আগামী ১৭ মে থেকেই খুলতে পারে রাজ্যের কলেজগুলি।

আপনাদের এই বিষয়ে কোন মতামত থাকলে অবশ্যই নিচে কমেন্ট করে জানাতে পারেন। শিক্ষা সম্পর্কিত আরও খবরের আপডেট পেতে ফলো করতে ভুলবেন না এই ওয়েব পোর্টালটি।
Written by Manisha Basak.

আরও পড়ুন, লিখিত পরীক্ষা ছাড়াই ৭৩৮ শূন্যপদে লাইব্রেরিয়ান নিয়োগ

Leave a Reply

Your email address will not be published.